"""বই পড়ার আনন্দ"""

""বই পড়ার আনন্দ ""জ্ঞান চর্চায় পুস্তক পাঠ। 

বই পড়ার আনন্দ 
বইয়ের পৃষ্ঠায় সঞ্চিত আছে হাজার বছরের সমুদ্র - কল্লোল ।  বই অতীত আর বর্তমানের সংযোগসেতু।।  বই জ্ঞানের আধার। একটা ভালো বই বিশ্বস্ত বন্ধুর মতো।। যুগে যুগে মানুষ তাই বই পড়ে নিজেকে সমৃদ্ধ করেছে,  বাড়িয়ে নিয়েছে নিজের জ্ঞান ও অভিজ্ঞতার জগৎ।  পুস্তকপাঠ মানুষের মনের ভেতর অনেকগুলো আনন্দময় ভুবন তৈরি করতে পারে।  সেই আনন্দমুখর ভুবনে ডুব দিয়ে সংসারের নানা জটিলতা থেকে মুক্তি পাওয়া যায়।  দার্শনিক বারট্রান্ড রাসেলের  এই উক্তি ও উপলব্ধি অত্যন্ত খাটি। 




বই পড়ার মাধ্যমে আমরা সত্য, সুন্দর,  কল্যাণ,  ন্যায়ের শ্বাশত রুপের সাথে পরিচিত হই। এক ঘন্টার বই পড়া আমাদের ভ্রমণ করিয়ে আনতে  পারে বিশ্বজগত।  চোখের সামনে উদঘাটিত করে দিতে পারে মহাকাশের অজানা রহস্য। বইপড়া আমাদের মনের প্রসার ঘটায়।   নির্মল আনন্দ লাভের উৎস হিসেবে বই পড়ার বিকল্প কিছু নেই। পারস্যের কবি ওমর খৈয়াম বলেছেন,  "" রুটি মদ ফুরিয়ে যাবে,  প্রিয়ার চোখ ঘোলাটে হয়ে আসবে, কিন্তু বইখানা অনন্ত যৌবনা,  যদি তেমন বই হয় """।

বিপুলা এই পৃথিবীর কতটুকুই বা আমরা জানি। জীবন ও জগতের সান্নিধ্যে এসে মানুষ যে বিপুল জ্ঞান সঞ্চার করেছে,  তা বিধৃত রয়েছে বইয়ের কালো অক্ষরে।  মনমশক্তি অর্জন আর  হৃদয়শক্তি বিস্তার করতে হলেও প্রয়োজন বই পড়া। 


বিনোদনের হাজার হাজার মাধ্যম আছে পৃথিবীতে।  কিন্তু সেই বিনোদন অনেক সময় নির্মল হয় না।  ভালো বইয়ের সান্নিধ্যে মানুষের অশান্ত মনে এনে দিতে পারে স্বর্গীয় সুখ, হৃদয়ে বইয়ে দিতে পারে আনন্দের বন্যা। 


বইপড়ার আনন্দকে আমরা রাজপ্রাসাদের সাথে তুলনা করতে পারি। ধরা যাক,  আমি কোনো রাজপ্রাসাদে প্রবেশ করবো।  যেখানে আমার জন্য স্তরে স্তরে সাজানো প্রিয় ফুলের লাবণ্য রয়েছে।।  সুস্বর পাখিরা ডাকছে মধুর কন্ঠে।  চন্দনসুগন্ধি রয়েছে চারিদিকে।  রাজপ্রাসাদে এক এক কক্ষে এক-এক রকম আয়োজন।   বস্তুত একটি ভালো বই সুসজ্জিত,  আনন্দময় রাজপ্রাসাদের মতোই। 


বইয়ের পাতায় কালো অক্ষরে অমর হয়ে আছে মানুষের চিরন্তন আত্নার দ্যূতি। বইপড়া মানুষের মনে সঞ্চার করে অনাবিল আনন্দ।  মনকে সতেজ করে বই। সৌন্দর্যময় জগতে একমাত্র অবগাহনের শক্তি রয়েছে তারই। তিনি কেবল গাইতে পারেন -
"" আলো আমার আলো ওগো 
   আলোয় ভুবন ভরা ""

2 comments:

  1. বই পড়ার আনন্দ অনেক । সত্যি লেখাগুলো অনেক ভালো

    ReplyDelete

Featured post

বিশ্বকাপে ফিক্সিং রোধকল্পে নতুন ব্যবস্থা আইসিসির

ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৯ কিছুদিনের মধ্যেই শুরু হতে যাচ্ছে৷   ফিক্সিং নামক ভয়ানক পরিস্থিতি মোকাবিলা করতে আইসিসি একটি নতুন পদক্ষেপ নিয়েছে।। প...

Powered by Blogger.